পৃথিবীর ইতিহাসে নজীরবিহীন অনন্তকালব্যাপী জারীকৃত পবিত্র সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ উনার বিশেষ শান মুবারক ৬৩ দিনব্যাপী বিশেষ মাহফিল

সংখ্যা: ২৪৯তম সংখ্যা | বিভাগ:

আনজুমানে আল বাইয়্যিনাত ও মাহফিল সংবাদ

আল বাইয়্যিনাত শরীফ প্রতিবেদন : যামানার খাছ লক্ষ্যস্থল ওলীআল্লাহ, যামানার ইমাম ও মুজতাহিদ, খলীফাতুল্লাহ, খলীফাতু রসূলিল্লাহ, ইমামুল আইম্মাহ, মুহইস সুন্নাহ, কুতুবুল আলম, আওলাদে রসূল, মুজাদ্দিদে আ’যম, সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুল উমাম আলাইহিস সালাম তিনি পবিত্র হাদীস শরীফ উনার বরাত দিয়ে বলেন, নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি আরো ইরশাদ মুবারক করেন, “পুরুষ-মহিলা সকলের জন্যই দ্বীনি ইলম অর্জন করা ফরয।” তাই ৯৮ ভাগ মুসলমান অধ্যুষিত ও রাষ্ট্রদ্বীন ইসলাম উনার দেশের সরকারের জন্য ফরয হচ্ছে- সমস্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সিলেবাসে দ্বীনী ইলম উনাকে প্রাধান্য দেয়া তথা সিলেবাসে অন্তর্ভূক্ত করা। পাশাপাশি সিলেবাসে নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম, হযরত উম্মাহাতুল মু’মিনীন আলাইহিন্নাস, হযরত আহলু বাইত শরীফ আলাইহিমুস সালাম, হযরত ছাহাবায়ে কিরাম রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহুম, হযরত আউলিয়ায়ে কিরাম রহমতুল্লাহি আলাইহিম উনাদের জীবনী মুবারক অবশ্যই অন্তর্ভুক্ত করা।

মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, তোমরা বলো অর্থাৎ আমার নিকট দোয়া করো- হে আমাদের রব তায়ালা! আমাদের ইলম বৃদ্ধি করে দিন। নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “তোমরা দোলনা থেকে কবর পর্যন্ত অর্থাৎ জন্ম থেকে মৃত্যু পর্যন্ত ইলম অন্বেষণ করো।”

মুজাদ্দিদে আ’যম, সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুল উমাম আলাইহিস সালাম তিনি বলেন, এদেশের ৯৮ ভাগ লোক মুসলমান। আর মুসলমান উনাদের কাছে সম্মানিত দ্বীন ইসলাম ছাড়া অন্য কিছুই গ্রহণযোগ্য নয়। পবিত্র কুরআন শরীফ উনার মধ্যে ইরশাদ মুবারক হয়েছে, “যে ব্যক্তি সম্মানিত দ্বীন ইসলাম ছাড়া অন্য কোনো নিয়মনীতি গ্রহণ করে তার থেকে, তা কখনই গ্রহণ করা হবে না। এবং পরকালে সে ক্ষতিগ্রস্তদের অন্তর্ভুক্ত হবে।”

এ পবিত্র আয়াত শরীফ উনার আলোকে প্রতিভাত হয় যে, এদেশের ৯৮ ভাগ অধিবাসী মুসলমানগণ উনাদের শিক্ষানীতি সম্পূর্ণরূপে সম্মানিত দ্বীন ইসলাম উনার আলোকে হতে হবে। তা না হলে কোনো মুসলমানই সেটা গ্রহণ করতে পারে না। করলে মুসলমান পরকালে ক্ষতিগ্রস্তদের অন্তর্ভুক্ত হবে।

মুজাদ্দিদে আ’যম, সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুল উমাম আলাইহিস সালাম তিনি বলেন, তাই ‘পবিত্র কুরআন শরীফ ও পবিত্র সুন্নাহ শরীফ বিরোধী কোনো আইন পাস হবে না’- এ প্রতিশ্রুতিবদ্ধ সরকারের জন্য ফরয হচ্ছে, পবিত্র কুরআন শরীফ ও পবিত্র সুন্নাহ শরীফ বিরোধী প্রচলিত শিক্ষানীতি বাতিল করে পবিত্র কুরআন শরীফ ও পবিত্র সুন্নাহ শরীফ উনাদের সম্মত শিক্ষানীতি প্রণয়ন করা। সমস্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সিলেবাসে দ্বীনী ইলম উনাকে প্রাধান্য দেয়া তথা অর্ন্তভূক্ত করতে হবে।

তাই প্রত্যেক আনজুমান আমীলগণের দায়িত্ব-কর্তব্য হলো, অনন্তকালব্যাপী জারীকৃত সুমহান পবিত্র সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ উনার সম্মানার্থে সম্মানিত দ্বীন ইসলাম উনার সংশ্লিষ্ট সব বিষয়গুলো যাতে সরকার সব শ্রেণীর পাঠ্যপুস্তকে ও সিলেবাসে অন্তর্ভূক্ত করে; তার ব্যাপক প্রচার প্রসারের উদ্যোগ গ্রহণ করা।

 

মাহফিল সংবাদ

পৃথিবীর ইতিহাসে নজীরবিহীন অনন্তকালব্যাপী জারীকৃত পবিত্র সাইয়্যিদুল

আ’ইয়াদ শরীফ উনার বিশেষ শান মুবারক ৬৩ দিনব্যাপী বিশেষ মাহফিল


খ্বলীফাতুল্লাহ, খ্বলীফাতু রসূলিল্লাহ, ইমামুল আইম্মাহ, মুহইউস সুন্নাহ, কুতুবুল আলম, মুজাদ্দিদে আ’যম, আওলাদে রসূল ঢাকা রাজারবাগ শরীফ উনার সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুল উমাম আলাইহিস সালাম উনার কর্তৃক পৃথিবীর ইতিহাসে নজীরবিহীন অনন্তকালব্যাপী জারীকৃত পবিত্র সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ উনার বিশেষ শান মুবারক ৬৩ দিনব্যাপী আয়োজিত বিশেষ মাহফিলের ১ম ৩০ দিন প্রতিযোগীতা মাহফিল শেষে ২য় ৩০ দিন বিষয়ভিত্তিক ওয়াজ মাহফিল এবং সবশেষে ৩ দিন পবিত্র সামা শরীফ মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। রাজারবাগ শরীফ পবিত্র সুন্নতী জামে মসজিদে এসব মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়।

উল্লেখ্য শাহরুল আ’যম, সাইয়্যিদুল আসইয়াদ পবিত্র সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ মাসে রাজারবাগ শরীফ সুন্নতি জামে মসজিদে আরো অনেক বিশেষ মাহফিল মুবারক অনুষ্ঠিত হয় এবং প্রতিদিনই বিশেষ তবারুক বিতরণ করা হয়।

১ রবীউল আউওয়াল শরীফ : নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার মুবারক হিজরত মুবারক দিবস।

২ রবীউল আউওয়াল শরীফ: ইবনু রসূলিল্লাহ সাইয়্যিদুনা হযরত ছানী (হযরত ত্বইয়িব) আলাইহিস সালাম উনার বরকতময় বিলাদতী শান মুবারক প্রকাশ দিবস।

৪ রবীউল আউওয়াল শরীফ: ইবনু রসূলিল্লাহ সাইয়্যিদুনা হযরত ছালিছ (হযরত ত্বাহির) আলাইহিস সালাম উনার বরকতময় বিলাদতী শান মুবারক প্রকাশ দিবস।

৫ রবীউল আউওয়াল শরীফ: উম্মু রসূলিনা সাইয়্যিদাতু নিসায়িল আলামীন সাইয়্যিদাতুনা হযরত আমিনা আলাইহাস সালাম উনার পবিত্র বিলাদতী শান মুবারক প্রকাশ দিবস।

৭ রবীউল আউওয়াল শরীফ: সাইয়্যিদাতুন নিসা, ক্বায়িম মাক্বামে উম্মাহাতুল মু’মিনীন, হাবীবাতুল্লাহ সাইয়্যিদাতুনা হযরত উম্মুল উমাম আলাইহাস সালাম উনার পবিত্রতম বিলাদতী শান মুবারক প্রকাশ দিবস।

৮ রবীউল আউওয়াল শরীফ: ইবনু রসূলিল্লাহ সাইয়্যিদুনা হযরত ছানী (হযরত ত্বইয়িব) আলাইহিস সালাম উনার বরকতময় বিছালী শান মুবারক প্রকাশ দিবস।

১০ রবীউল আউওয়াল শরীফ: উম্মু রসূলিনা, সাইয়্যিদাতু নিসায়িল আলামীন সাইয়্যিদাতুনা হযরত আমিনা আলাইহাস সালাম উনার এবং ইবনু রসূলিল্লাহ র্আ-রবি’ সাইয়্যিদুনা হযরত ইবরাহীম আলাইহিস সালাম উনাদের পবিত্রতম বিছালী শান মুবারক প্রকাশ দিবস।

১১ রবীউল আউয়াল শরীফ: ফখরুল উলামা, ইমামুছ ছরফ, সুলতানুল আরেফিন, আওলাদে রসূল সাইয়্যিদুনা হযরতুল আল্লামা সাইয়্যিদ মুহম্মদ রুকনুদ্দীন আলাইহিস সালাম উনার পবিত্র বিছালী শান মুবারক প্রকাশ শরীফ।

১২ রবীউল আউওয়াল শরীফ: সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ, সাইয়্যিদে ঈদে আ’যম, সাইয়্যিদে ঈদে আকবর পবিত্র ঈদে মীলাদুন নবী ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এবং হযরত সাইয়্যিদে মুজাদ্দিদ আ’যম আলাইহিস সালাম উনার পবিত্রতম বিলাদত শরীফ দিবস ও ইবনু রসূলিল্লাহ সাইয়্যিদুনা হযরত ছালিছ (হযরত ত্বাহির) আলাইহিস সালাম উনার বরকতময় বিছালী শান মুবারক প্রকাশ দিবস।

১৩ রবীউল আউওয়াল শরীফ: আফদ্বালুন নাস বা’দাল আম্বিয়া হযরত আবূ বকর ছিদ্দীক্ব আলাইহিস সালাম উনার সম্মানিত খিলাফত মুবারক গ্রহণ দিবস ও সাইয়্যিদুনা হযরত দাদা হুযূর ক্বিবলা আলাইহিস সালাম উনার বিছালী শান মুবারক প্রকাশ দিবস।

১৭ রবীউল আউওয়াল শরীফ: হযরত শাফিউল উমাম আলাইহিস সালাম উনার সম্মানিত পিতাজান উনার বিছালী শান মুবারক প্রকাশ দিবস।

১৮ রবীউল আউওয়াল শরীফ: নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার এবং হযরত সাইয়্যিদে মুজাদ্দিদ আ’যম আলাইহিস সালাম উনার পবিত্রতম আক্বীক্বা শরীফ দিবস।

পৃথিবীর ইতিহাসে নজীরবিহীন অনন্তকালব্যাপী জারীকৃত পবিত্র সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ উনার বিশেষ শান মুবারক ৬৩ দিনব্যাপী আয়োজিত এসব মাহফিলে প্রধান অতিথি হিসেবে তাশরীফ আনেন, খ¦লীফাতুল্লাহ, খ¦লীফাতু রসূলিল্লাহ, ইমামুল আইম্মাহ, মুহইউস সুন্নাহ, কুতুবুল আলম, সাইয়্যিদে মুজাদ্দিদে আ’যম, সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুল উমাম আলাইহিস সালাম তিনি। সুবহানাল্লাহ!

একইভাবে মুহম্মদিয়া জামিয়া শরীফ বালিকা মাদরাসায় ছাত্রী ও মহিলা আনজুমান উনাদের উদ্যোগে প্রতিদিন বাদ যোহর থেকে পৃথিবীর ইতিহাসে নজীরবিহীন অনন্তকালব্যাপী জারীকৃত পবিত্র সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ উনার বিশেষ শান মুবারক ‘ফাল ইয়াফরাহু’ মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। তাছাড়া মাসব্যাপী মহিলাদের বিশেষ তালীম অনুষ্ঠিত হয়। এতে দেশের বিভিন্ন জেলা থেকে আগত মহিলাগণ এবং বিভিন্ন মহিলা আনজুমান উনার আমীলগণ অংশগ্রহণ করেন।

সম্মানিত এসব মাহফিলে প্রধান অতিথি হিসেবে তাশরীফ আনেন, সাইয়্যিদাতুন্ নিসা, আফযালুন নিসা, ইমামাতুস সিদ্দীকা, নুরে জাহান, আল মাবরুরা, আল মাহযুবা, আল ক্বারীবা ওয়াল মুক্বাররিবা, হাবীবাতুল্লাহ, আওলাদে রসূল, উম্মুল উমাম সাইয়্যিদাতুনা হযরত আম্মা হুযুর ক্বিবলা আলাইহাস সালাম তিনি। সুবহানাল্লাহ!

আনজুমানে আল বাইয়্যিনাত ও মাহফিল সংবাদ

আনজুমানে আল বাইয়্যিনাত ও মাহফিল সংবাদ

আনজুমানে আল বাইয়্যিনাত ও মাহফিল সংবাদ

আনজুমানে আল বাইয়্যিনাত ও মাহফিল সংবাদ

আনজুমানে আল বাইয়্যিনাত ও মাহফিল সংবাদ