আনজুমানে আল বাইয়্যিনাত ও মাহফিল সংবাদ

সংখ্যা: ২৮৩তম সংখ্যা | বিভাগ:

আল বাইয়্যিনাত শরীফ প্রতিবেদন: ছাহিবু সাইয়্যিদিল আ’ইয়াদ শরীফ, সুলত্বানুন নাছীর, আল ক্বউইউল আউওয়াল, আল জাব্বারিউল আউওয়াল, আহলু বাইতি রসূলিল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম, মামদূহ মুর্শিদ ক্বিবলা সাইয়্যিদুনা ইমাম খলীফাতুল্লাহ হযরত আস সাফফাহ আলাইহিস সালাম তিনি বলেন, পবিত্র হাদীছ শরীফ উনার মাঝে ইরশাদ মুবারক হয়েছে, “কেউ যদি একটা সুন্নত মুবারক পালন করে, তাহলে তাঁকে একশত শহীদের ছওয়াব দেয়া হবে।” কেমন একশত শহীদের সওয়াব? হযরত ছাহাবায়ে কিরাম রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহুম উনারা বদর-উহুদ যুদ্ধে শহীদ হয়ে যে রকম মর্যাদা মুবারক হাছিল করেছেন, ঠিক সেই রকম মর্যাদা হাছিল করবে এই আখিরী যামানায় একটা সুন্নত মুবারক আদায় করলেই। সুবহানাল্লাহ! আখেরী যামানায় সুন্নত মুবারক পালনে বিশেষ মর্যাদা ও ফযীলতের লক্ষ-কোটি কারণের মাঝে একটি বিশেষ কারণ হলো- এই সময় সুন্নত মুবারক অনেক দুষ্প্রাপ্য হয়ে যাবে এবং সুন্নত মুবারক পালনও অনেক কঠিন হয়ে যাবে। আখেরী যামানার এই কঠিন সময়েও মুসলমানগণ যাতে হাদীছ শরীফ উনার মাঝে বর্ণিত সুন্নত মুবারক পালনের বিশেষ মর্যাদা হাছিল করতে পারে, সে উদ্দেশ্য নিয়েই রাজারবাগ দরবার শরীফ উনার পক্ষ থেকে প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে “আন্তর্জাতিক পবিত্র সুন্নত মুবারক প্রচারকেন্দ্র”। এই পবিত্র সুন্নত মুবারক প্রচারকেন্দ্রে পাওয়া যাচ্ছে নিত্যপ্রয়োজনীয় প্রায় সকল ধরণের সুন্নতী সামগ্রী। এমনকি প্রায় বিলুপ্ত হয়ে যাওয়া অনেক দুষ্প্রাপ্য সুন্নতী বিষয়াদি এই “আন্তর্জাতিক পবিত্র সুন্নত মুবারক প্রচারকেন্দ্রে” সংগ্রহ করে প্রচার-প্রসার করা হচ্ছে।

আহলু বাইতি রসূলিল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম, মামদূহ মুর্শিদ ক্বিবলা সাইয়্যিদুনা ইমাম খলীফাতুল্লাহ হযরত আস সাফফাহ আলাইহিস সালাম তিনি বলেন, মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “নিশ্চয়ই আমার মহাসম্মানিত হাবীব ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার মাঝে তোমাদের জন্য সর্বোত্তম আদর্শ মুবারক রয়েছেন।” সুবহানাল্লাহ! মু’মিন-মুসলমানদেরকে জীবনের প্রতিটি পদে পদে পরিপূর্ণভাবে সুন্নত মুবারক উনার রঙ্গে রঞ্জিত করতে প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে- “আন্তর্জাতিক পবিত্র সুন্নত মুবারক প্রচারকেন্দ্র”।

তাই আনজুমান আমীলসহ প্রত্যেক মুসলমানেরই উচিত- “আন্তর্জাতিক পবিত্র সুন্নত মুবারক প্রচারকেন্দ্র” উনার সাথে সংশ্লিষ্ট ও সম্পৃক্ত হওয়া এবং প্রতিটি এলাকায় এলাকায়, প্রত্যেকের ঘরে ঘরে “আন্তর্জাতিক পবিত্র সুন্নত মুবারক প্রচারকেন্দ্র” প্রতিষ্ঠা করা। একইসাথে “আন্তর্জাতিক পবিত্র সুন্নত মুবারক প্রচারকেন্দ্র” থেকে যার যার প্রয়োজনীয় সকল ধরণের সুন্নতী সামগ্রী, সুন্নতী বিষয়াদি সংগ্রহ করা। তাহলে নিজেরও যেমন সুন্নত মুবারক উনার উপর আমল করা সহজ ও সম্ভব হবে, একই সাথে নিজের পরিবারবর্গের এবং পাড়া-প্রতিবেশী, আত্মীয়-স্বজনসহ সকলের মাঝে ব্যাপকভাবে পবিত্র সুন্নত মুবারক উনার প্রচার-প্রসার করা সহজ হয়ে যাবে। এবং ছদকায়ে জারিয়ার ফযীলতও অর্জন করা যাবে। সুবহানাল্লাহ!

 

প্রতি ইয়াওমুল ইছনাইনিল আযীম শরীফে বিশেষ মীলাদ শরীফ ও শহরজুড়ে তাবারুক বিতরণ জারী

নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার সাথে আখাছছুল খাছ আহলু বাইতি রসূলিল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম, মামদূহ মুর্শিদ ক্বিবলা সাইয়্যিদুনা ইমাম খলীফাতুল্লাহ হযরত আস সাফফাহ আলাইহিস সালাম উনার বেমেছাল, নজীরবিহীন অনুক্ষণ নিসবত মুবারকের বিশেষ বিশেষ শান মুবারক প্রতিদিনই প্রকাশ হচ্ছে। সুবহানাল্লাহ! সুবহানাল্লাহ! সুবহানাল্লাহ!

অনন্তকালব্যাপী জারীকৃত সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ, সাইয়্যিদু সাইয়্যিদিশ শুহুরিল আ’যম শরীফ, সাইয়্যিদু সাইয়্যিদিল আ’দাদ শরীফ, সাইয়্যিদু সাইয়্যিদিল আ’ওক্বাত শরীফ উনার পর মহাসম্মানিত নিসবত মুবারক উনার বেমেছাল শান মুবারক প্রকাশিত হলো ‘সাইয়্যিদু সাইয়্যিদিল আইয়্যাম শরীফ’ উনার সম্মানার্থে প্রতি ইয়াওমুল ইছনাইনিল আযীম শরীফে বিশেষ মীলাদ শরীফ ও শহরজুড়ে তাবারুক বিতরণ জারীর মাধ্যমে। গত ৪ঠা শাওওয়াল শরীফ ১৪৪২ হিজরীর ইয়াওমুল ইছনাইনিল আযীম থেকে এই মহাসম্মানিত বরকতময় কার্যক্রম জারী করা হয়েছে। এ বিশেষ আইয়্যামুল্লাহ শরীফ উপলক্ষ্যে প্রতি ইয়াওমুল ইছনাইনিল আযীম বাদ ফজর বিশেষ মীলাদ শরীফ পাঠ শেষে রাজধানী ঢাকার বিভিন্নস্থানে মোটরসাইকেল সহযোগে বিশেষ তাবারুক বিতরণ করা হয়। এর পাশাপাশি সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ উনার শান মুবারকে বিশেষ কিতাবাদী ও লিফলেট প্রচার করা হয় এবং বিভিন্ন ধরণের সুন্নতী সামগ্রীসমূহের প্রদর্শনী করা হয়।

বিশেষভাবে উল্লেখ্য, নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি পবিত্রতম বিলাদতী শান মুবারক প্রকাশ করেন মহাপবিত্র ১২ই রবীউল আউওয়াল শরীফ; যা বার হিসেবে ইছনাইনিল আযীম (সোমবার)। আর যে কারণে এই ইছনাইনিল আযীম দিবস হচ্ছেন সপ্তাহের প্রতিটি বারের মধ্যে সর্বশ্রেষ্ঠ ও সর্বোত্তম। আর এ কারণেই রাজারবাগ শরীফ উনার সম্মাানিত মুর্শিদ ক্বিবলা আলাইহিস সালাম তিনি এ দিবস মুবারক উনার নামকরণ করেছেন, সাইয়্যিদু সাইয়্যিদিল আইয়্যাম শরীফ তথা সমস্ত শ্রেষ্ঠ দিনসমূহেরও শ্রেষ্ঠতম দিন। আর এ কারণেই নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার জন্য উনার সম্মানার্থে রাজারবাগ দরবার শরীফ উনার পক্ষ থেকে সপ্তাহের এ দিনকে বিশেষভাবে পালন করার উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে।

 

মহাপবিত্র সাইয়্যিদু সাইয়্যিদিল আ’দাদ শরীফ, কোটি কোটি কন্ঠে পবিত্র মীলাদ শরীফ মাহফিলএবং সকল আইয়্যামুল্লাহ শরীফ পালিত

 

আহলু বাইতি রসূলিল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম, মামদূহ মুর্শিদ ক্বিবলা সাইয়্যিদুনা ইমাম খলীফাতুল্লাহ হযরত আস সাফফাহ আলাইহিস সালাম উনার এবং সাইয়্যিদাতুন নিসা, কায়িম মাক্বামে উম্মাহাতুল মু’মিনীন আলাইহিন্নাস সালাম, আহলু বাইতি রসূলিল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম, সাইয়্যিদাতুনা হযরত উম্মুল উমাম আলাইহাস সালাম উনাদের মুবারক পৃষ্ঠপোষকতায় রাজারবাগ শরীফ সুন্নতি জামে মসজিদ এবং মুহম্মদিয়া জামিয়া শরীফ বালিকা মাদরাসায় মহাসমারোহে ও ব্যাপক শান শওকতের সাথে শাওওয়াল শরীফ মাসের মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র সাইয়্যিদু সাইয়্যিদিল আ’দাদ শরীফ তথা ১২ই শরীফ পালিত হয়েছেন।

পাশাপাশি ঢাকা মহানগরের সকল ওয়ার্ড, দেশের সকল জেলা এবং বহিঃবিশ্বে জাজিরাতুল আরব, মালয়েশিয়া, দুবাই, সিঙ্গাপুর, ভারত, কাতার, ওমান, থাইল্যান্ড, কুয়েত, আমেরিকা, দক্ষিণ আফ্রিকা, লন্ডন, সুইডেন, স্পেন, রাশিয়াসহ আরো অনেক দেশে পালিত হয়েছেন।

মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র এ দিবস উপলক্ষ্যে আহলু বাইতি রসূলিল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম, মামদূহ মুর্শিদ ক্বিবলা সাইয়্যিদুনা ইমাম খলীফাতুল্লাহ হযরত আস সাফফাহ আলাইহিস সালাম তিনি রাজারবাগ শরীফ সুন্নতি জামে মসজিদে আয়োজিত আজিমুশশ্বান মাহফিলে বিশেষ নছীহত মুবারক ও সারাবিশ্বের মুসলিম উম্মাহের জন্য দুয়া-মুনাজাত মুবারক করেন। সুবহানাল্লাহ! একইভাবে কায়িম মাক্বামে উম্মাহাতুল মু’মিনীন আলাইহিন্নাস সালাম, আহলু বাইতি রসূলিল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম, সাইয়্যিদাতুনা হযরত উম্মুল উমাম আলাইহাস সালাম তিনি মুহম্মদিয়া জামিয়া শরীফ বালিকা মাদরাসায় আয়োজিত মাহফিলে বিশেষ নছীহত মুবারক ও সারাবিশ্বের মুসলিম উম্মাহের জন্য দুয়া-মুনাজাত মুবারক করেন। সুবহানাল্লাহ!

আজিমুশ্বান মাহফিলে নকশায়ে হায়দার, কুতুবুল আলম, বাহরুল উলূম, আওলাদে রসূল সাইয়্যিদুনা হযরত শাফিউল উমাম আলাইহিস সালাম তিনি এবং নকশায়ে যুন নূরাইন আলাইহিস সালাম, কুতুবুল আলম, বাহরুল উলূম, আওলাদে রসূল সাইয়্যিদুনা হযরত হাদিউল উমাম আলাইহিস সালাম উনারা মুবারক নছীহত করেন।

আজিমুশ্বান মাহফিলের অংশ হিসেবে বাদ ফজর ঢাকা মহানগরের ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে এবং জেলায় জেলায় পবিত্র কোটি কোটি কণ্ঠে পবিত্র মীলাদ শরীফ পাঠ করা হয়। মীলাদ শরীফ শেষে ঢাকা মহানগরের বিভিন্ন এলাকায় লাখ লাখ প্যাকেট এবং সারাদেশের জেলা, থানা আনজুমান, সারাদেশের মসজিদ-মাদরাসার উদ্যোগে লাখ লাখ প্যাকেট বরকতময় তবারুক বিতরণ করা হয়।  বাদ যোহর নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার মহাসম্মানিত ও মহাপবিত্র আক্বীকা শরীফ উপলক্ষে ২টি গরু এবং ৬০টি খাসী মুবারক আক্বীক্বাহ করা হয়। দৈনিক আল ইহসান শরীফ উনার বিশেষ সংখ্যা, বিশেষ রেসালা শরীফ প্রকাশ করা হয়।

আনজুমানে আল বাইয়্যিনাত ও মাহফিল সংবাদ

আনজুমানে আল বাইয়্যিনাত ও মাহফিল সংবাদ

আনজুমানে আল বাইয়্যনিাত ও মাহফলি সংবাদ

আনজুমানে আল বাইয়্যিনাত ও মাহফিল সংবাদ

আনজুমানে আল বাইয়্যিনাত ও মাহফিল সংবাদ