আ’লামু বিত্ ত্বিব, আ’লামু বিল ফারায়িদ্ব, আ’লামু বিসুনানি রসূলিল্লাহ, হুল্লাতুল ইসলাম, আশাদ্দু হিজাবান, ইমামুল আইম্মাহ, মুহ্ইস সুন্নাহ, কুতুবুল আলম, মুজাদ্দিদে আ’যম, হাবীবুল্লাহ, আওলাদে রসূল, সাইয়্যিদুনা ইমাম- রাজারবাগ শরীফ-এর মামদূহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা মুদ্দা জিল্লুহুল আলী-এর নাম মুবারকের পূর্বে ব্যবহৃত লক্বব বা উপাধির তাত্ত্বিক ব্যাখ্যা বিশ্লেষণ-৮৮

সংখ্যা: ১৯৪তম সংখ্যা | বিভাগ:

-হযরত মাওলানা মুফতী সাইয়্যিদ মুহম্মদ আব্দুল হালীম

‘মুহ্ইস সুন্নাহ’ লক্বব মুবারক প্রসঙ্গে

খলীফাতুল্লাহ, খলীফাতু রসূলিল্লাহ, ইমামুল আইম্মাহ, মুহইস সুন্নাহ, কুতুবুল আলম, মুজাদ্দিদে আ’যম, আওলাদে রসূল, সাইয়্যিদুনা ইমাম রাজারবাগ শরীফ-এর মামদূহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা মুদ্দা জিল্লুহুল আলী-উনার জিন্দাকৃত বা পুনঃপ্রচলন করা কতিপয় সুন্নতের বিবরণ:

জুব্বা পরিধান করা খাছ সুন্নত:

আল্লাহ পাক-এর হাবীব, সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম মুকীম ও মুসাফির উভয় অবস্থায় জুব্বা মুবারক পরিধান করেছেন। এমনকি তিনি জুব্বা মুবারক পরিহিত অবস্থায় অযুও করেছেন।

হযরত উমর ইবনুল খাত্তাব রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহু হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, আমি একদিন আল্লাহ পাক-এর হাবীব সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনাকে অযু করতে দেখলাম। সেই সময় তিনি রোমের তৈরি সংকীর্ণ হাতাওয়ালা জুব্বা মুবারক পরিহিত ছিলেন। (আখলাকুন্ নবী-১৬৪)

হযরত মুগীরা রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহু হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, এক সফরে আমরা আল্লাহ পাক-এর হাবীব হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম-উনার সাথে ছিলাম। তিনি রোমের তৈরি উনার মুবারক জুব্বাটির হাতা উপরে গুটাতে শুরু করলেন। কিন্তু হাতা সংকীর্ণ হওয়ার কারণে হাত বের করতে সক্ষম হলেন না। তখন নিজের হাত জুব্বা মুবারকের ভিতর থেকে বের করে ফেললেন। (আখলাকুন্ নবী-১৬৫, বুখারী শরীফ-১/১৪২, মুসলিম শরীফ-১/২২৯)

আল্লাহ পাক-এর হাবীব হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম যুদ্ধের ময়দানেও জুব্বা মুবারক পরিহিত ছিলেন।

হাদীছ শরীফ-এ বর্ণিত আছে-

عن اسماء بنت ابى بكر رضى الله تعالى عنها ان النبى صلى الله عليه وسلم كانت له جبة طيالسة مكفوفة بالديباج يلقى فيها العدو.

অর্থ: হযরত আসমা বিনতে আবু বকর রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহুমা বলেন, আল্লাহ পাক-উনার হাবীব সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম-উনার একটি তায়ালেসানী জুব্বা মুবারক ছিল। যার মধ্যে রেশমী ফিতা লাগানো ছিল। আর এটা পরিধান করে তিনি শত্রুদের সাথে যুদ্ধে অবতীর্ণ হতেন। (আখলাকুন্ নবী-১৬৩)

উল্লেখ্য যে, সব বিষয় লিখে পরিপূর্ণভাবে প্রকাশ করা সম্ভব হয় না। সেজন্যই কবি বলতে বাধ্য হয়েছেন যে “শুনাটা কখনো দেখার মতো হয় না।”

হযরত ছাহাবায়ে কিরাম রদ্বিয়াল্লাহু তায়ালা আনহুম উনাদের কাছে কেউ যদি জিজ্ঞাসা করতেন যে, আল্লাহ পাক-উনার হাবীব হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম কিভাবে অযু করতেন? তখন উনারা তাকে পানি আনতে বলতেন। পানি আনলে অযু করে দেখিয়ে দিতেন। বলতেন এভাবে আল্লাহ পাক-উনার হাবীব হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম অযূ করতেন। মূলত কোন সুন্নত হোক তা দেখে দেখে যতটা শিক্ষা করা যায় তা শুনে ততটা সম্ভব হয় না। সেজন্যই আল্লাহ পাক উনার ওলীগণ-উনার ছোহবত ইখতিয়ার করার আদেশ দিয়েছেন।

কাজেই সুন্নত সম্পর্কীয় যেকোন ইলম হাছিল করতে হলে যামানার ইমাম ও মুজতাহিদ মুজাদ্দিদে আ’যম, হাবীবে আ’যম, আওলাদে রসূল ঢাকা রাজারবাগ শরীফ-এর মামদূহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা মুদ্দা জিল্লুহুল আলী-এর ছোহবত ইখতিয়ার করা আবশ্যক। আল্লাহ পাক-উনার হাবীব সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম স্বপ্নে, মুরাকাবায় ইত্যাদি ভাবে মুসলিম উম্মাহর-এ অনেক ছূফী ব্যক্তিত্বকে উনার সেই বরকতপূর্ণ ছোহবত ইখতিয়ার করার নির্দেশ দেন। খোদ যামানার ইমাম ও মুজতাহিদ, খলীফাতুল্লাহ, খলীফাতু রসূলিল্লাহ, ইমামুল আইম্মাহ, মুহইস সুন্নাহ, কুতুবুল আলম, মুজাদ্দিদে আ’যম, আওলাদে রসূল, সাইয়্যিদুনা ইমাম রাজারবাগ শরীফ-এর মামদূহ মুর্শিদ ক্বিবলা মুদ্দা জিল্লুহুল আলীকে বিশেষ এক মজলিসে বলতে শুনেছি। তিনি বলেন, একবার যাত্রাবাড়ী দরবার শরীফ-এ সুন্নতী টুপি সম্পর্কে আলোচনা হচ্ছিল। কোন ধরনের টুপি পরা খাছ সুন্নত। আল্লাহ পাক-উনার হাবীব সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম কেমন টুপি মুবারক পরিধান করেছেন সে সম্পর্কে অনেকে অনেক কথা-বার্তা বললেন। তাদের কথা-বার্তা শুনে আমি বললাম, চার টুকরা বিশিষ্ট, গোল, সাদা, সুতি কাপড়ের তৈরি টুপিই হচ্ছে খাছ সুন্নতী টুপি। আল্লাহ পাক-উনার হাবীব, সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামকে আল্লাহ পাক হযরত জিবরীল আলাইহিস সালাম-উনার মাধ্যমে এ টুপিই হাদিয়া দিয়েছিলেন। (চলবে)

ছাহিবুর রিদ্বওয়ান, আয়ায্যু উম্মাতিন নাবিয়্যি, আ’দালু উম্মাতিন নাবিয়্যি, ছাহিবুত্ তাক্বওয়া, মাহবুবুল্লাহ, ইমামুল আইম্মাহ, মুহ্ইস সুন্নাহ, কুতুবুল আলম, মুজাদ্দিদে আ’যম, হাবীবুল্লাহ, আওলাদে রসূল, সাইয়্যিদুনা ইমাম- রাজারবাগ শরীফ-এর মামদূহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা মুদ্দা জিল্লুহুল আলী-এর নাম মুবারকের পূর্বে ব্যবহৃত লক্বব বা উপাধির তাত্ত্বিক ব্যাখ্যা বিশ্লেষণ-৭৮

ছাহিবুর রিদ্বওয়ান, আয়ায্যু উম্মাতিন নাবিয়্যি, আ’দালু উম্মাতিন নাবিয়্যি, ছাহিবুত্ তাক্বওয়া, মাহবুবুল্লাহ, ইমামুল আইম্মাহ, মুহ্ইস সুন্নাহ, কুতুবুল আলম, মুজাদ্দিদে আ’যম, হাবীবুল্লাহ, আওলাদে রসূল, সাইয়্যিদুনা ইমাম- রাজারবাগ শরীফ-এর মামদূহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা মুদ্দা জিল্লুহুল আলী-এর নাম মুবারকের পূর্বে ব্যবহৃত লক্বব বা উপাধির তাত্ত্বিক ব্যাখ্যা বিশ্লেষণ-৭৯

ছাহিবুর রিদ্বওয়ান, আয়ায্যু উম্মাতিন নাবিয়্যি, আ’দালু উম্মাতিন নাবিয়্যি, ছাহিবুত্ তাক্বওয়া, মাহবুবুল্লাহ, ইমামুল আইম্মাহ, মুহ্ইস সুন্নাহ, কুতুবুল আলম, মুজাদ্দিদে আ’যম, হাবীবুল্লাহ, আওলাদে রসূল, সাইয়্যিদুনা ইমাম- রাজারবাগ শরীফ-এর মামদূহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা মুদ্দা জিল্লুহুল আলী-এর নাম মুবারকের পূর্বে ব্যবহৃত লক্বব বা উপাধির তাত্ত্বিক ব্যাখ্যা বিশ্লেষণ-৮০

ছাহিবুর রিদ্বওয়ান, আয়ায্যু উম্মাতিন নাবিয়্যি, আ’দালু উম্মাতিন নাবিয়্যি, ছাহিবুত্ তাক্বওয়া, মাহবুবুল্লাহ, ইমামুল আইম্মাহ, মুহ্ইস সুন্নাহ, কুতুবুল আলম, মুজাদ্দিদে আ’যম, হাবীবুল্লাহ, আওলাদে রসূল, সাইয়্যিদুনা ইমাম- রাজারবাগ শরীফ-উনার মামদূহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা আলাইহিস সালাম নাম মুবারকের পূর্বে ব্যবহৃত লক্বব বা উপাধির তাত্ত্বিক ব্যাখ্যা বিশ্লেষণ-৮১

ছাহিবুর রিদ্বওয়ান, আয়ায্যু উম্মাতিন নাবিয়্যি, আ’দালু উম্মাতিন নাবিয়্যি, ছাহিবুত্ তাক্বওয়া, মাহবুবুল্লাহ, ইমামুল আইম্মাহ, মুহ্ইস সুন্নাহ, কুতুবুল আলম, মুজাদ্দিদে আ’যম, হাবীবুল্লাহ, আওলাদে রসূল, সাইয়্যিদুনা ইমাম- রাজারবাগ শরীফ-এর মামদূহ হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা মুদ্দা জিল্লুহুল আলী-এর নাম মুবারকের পূর্বে ব্যবহৃত লক্বব বা উপাধির তাত্ত্বিক ব্যাখ্যা বিশ্লেষণ-৮২