মুজাদ্দিদে আ’যম, ঢাকা রাজারবাগ শরীফ উনার মহাসম্মানিত হযরত মুরশিদ ক্বিবলা আলাইহিস সালাম উনার মুবারক পৃষ্ঠপোষকতায় পরিচালিত- সম্মানিত দ্বীন ইসলাম ও মুসলমানগণের অধিকার আদায়ের লক্ষ্যে আইনী কার্যক্রম ঐতিহাসিক এক অভূতপূর্ব আজিমুশ্বান তাজদীদ মুবারক (৪)

সংখ্যা: ২৮০তম সংখ্যা | বিভাগ:

মহান আল্লাহ পাক তিনি ইরশাদ মুবারক করেন, “মুসলমানদের প্রতি হিংসাবশত অধিকাংশ আহলে কিতাব তথা ইহুদী-নাছারা চায় ঈমান আনার পর পুনরায় তোমাদেরকে কাফির বানিয়ে দিতে।” (পবিত্র সূরা বাক্বারা শরীফ, পবিত্র আয়াত শরীফ: ১০৯)

উপরোক্ত পবিত্র আয়াত শরীফ উনার বাস্তবতা দেখতে পাই আমাদের দেশেও। এদেশ থেকে ইসলামী অনুশাসন, তাহযীব-তামাদ্দুন উঠিয়ে দেবার লক্ষ্যে এই কাফির গোষ্ঠী কখনো মিডিয়াকে, কখনো শাসক শ্রেনীকে এবং কখনো আদালতকে ব্যবহার করে তাদের স্বার্থ উদ্ধার করে যাচ্ছে। এমনকি শাসক শ্রেণী কোনো বিষয়ে সম্মত না হলে, আনুগত্যতা না দেখালে তাদের পরিবর্তনেও সাম্রাজ্যবাদীরা কোর্টকে ব্যবহার করছে যার প্রমাণ এখন অনেক দেশে রয়েছে।

বর্তমান সময়ের যিনি সম্মানিত ইমাম ও মুজাদ্দিদ, মুজাদ্দিদে আ’যম, ইমামুল আইম্মাহ, ক্বইয়ূমুয যামান, জাব্বারিউল আউওয়াল, ক্বউইয়্যুল আউওয়াল, সুলত্বানুন নাছীর, হাবীবুল্লাহ, রাজারবাগ শরীফ উনার মহাসম্মানিত মুর্শিদ ক্বিবলাহ্ সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুল উমাম আলাইহিস সালাম তিনি কাফির-মুশরিক এবং সাম্রাজ্যবাদীদের এইসব অপকৌশল সম্পর্কে পরিপূর্ণভাবে অবগত। তিনি এই বাংলাদেশের আদালতে চাপিয়ে দেয়া বৃটিশ বেনিয়াদের রচিত মনগড়া আইনের ফাঁকফোকর জেনে তাদের তৈরি অস্ত্র প্রয়োগ করেই এদের প্রতিহত করার জন্য শুরু করেন “আইনী প্রক্রিয়া কার্যক্রম”। এই কার্যক্রমের মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে মুসলমান উনাদের আকিদা বিশুদ্ধ করে ঈমান হিফাজত করা। সুবহানাল্লাহ।

এই প্রক্রিয়াটি যেমনি ব্যয়বহুল তেমনি কস্টসাধ্য। কেননা সম্পূর্ণ বিপরীত স্রোতে হেঁটে এখানে কার্যক্রম চালানোর জন্য যেমনি প্রয়োজন ছিল দক্ষ এবং ইসলাম উনার অনুশাসন উপলব্ধিকারী আইনীজিবী তেমনি প্রয়োজন ছিল কার্যক্রম সঞ্চালনের জন্য লোকবল। কিন্তু যেহেতু সাইয়্যিদুনা হযরত মুজাদ্দিদে আ’যম আলাইহিস সালাম তিনি পরিপূর্ণভাবে মহান আল্লাহ পাক এবং উনার হাবীব নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম উনাদের দ্বারা নিয়ন্ত্রিত ফলে মহান আল্লাহ পাক উনার কুদরত মুবারক উনার দ্বারা সকল অসাধ্য কাজও সম্পূর্ণ করিয়ে নিচ্ছেন।

আপনাদের উপলব্ধির স্বার্থে নীচে বিশেষ কিছু আইনী কার্যক্রমের তালিকা ধারাবাহিকভাবে প্রকাশ করা হল। এখান থেকে অনেক বিষয়ে কার্যক্রম পরিচালনা করে সফলতা অর্জিত হয়েছে এবং অন্য অনেক বিষয়ে কার্যক্রম বর্তমানে চলমান রয়েছে।

উল্লেখ্য যে, মুজাদ্দিদে আ’যম, ইমামুল আইম্মাহ, ক্বইয়ূমুয যামান, জাব্বারিউল আউওয়াল, ক্বউইয়্যুল আউওয়াল, সুলত্বানুন নাছীর, হাবীবুল্লাহ, রাজারবাগ শরীফ উনার মহাসম্মানিত মুর্শিদ ক্বিবলাহ্ সাইয়্যিদুনা হযরত ইমামুল উমাম আলাইহিস সালাম উনার মুবারক নির্দেশনায় ইতিমধ্যে বাংলাদেশ হাইকোর্টে বহুসংখ্যক রিট ও নিম্ন আদালতে মামলা দায়ের এবং অনেক ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানকে আইনী নোটিশ পাঠানো হয়। তম্মধ্যে উল্লেখযোগ্য কয়েকটি বিষয় নিম্নে তুলে ধরা হলো।

 

যে সব বিষয়ে আইনী নোটিশ

প্রেরণ করা হয়েছে

 

১. উচ্চ স্বরে গান-বাজনা বন্ধে সারা বাংলাদেশের মহানগর পুলিশকে জাস্টিস ডিমান্ডিং নোটিশ পাঠানো হয়।

নোটিশ পাঠানোর এক সপ্তাহের মধ্যে এ বিষয়ে প্রেস কনফারেন্স করে মিডিয়াতে সারাদেশে উচ্চ স্বরে গান-বাজনা নিষিদ্ধ হওয়ার বিষয়ে বিশেষভাবে জানানো হয়।

২. কথিত বিশ্ব ভালবাসা দিবস উপলক্ষে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে চরম বেপর্দা বেহায়াপনা বিস্তারে ‘কাছে আসার রিক্সা’ ক্যাম্পেইন বন্ধ করতে ইউনিলিভারকে আইনী নোটিশ পাঠানো হয়।

লিগ্যাল নোটিশ পাঠানোর দু’দিনের মধ্যে তারা জানায় যে, ক্যাম্পেইনটি আর হচ্ছে না অর্থাৎ বন্ধ করতে বাধ্য হয়।

৩. “দেখিয়ে দাও অদেখা তোমায়” নামক সুন্দরী প্রতিযোগীতা বন্ধে লাক্স-চ্যানেল আইকে সারা দেশ থেকে প্রায় ২০টি নোটিশ পাঠানো হয়েছে। এ বিষয়ে তাদের পক্ষ থেকে প্রত্যেকটির জবাব পাঠিয়েছে। জবাবে জানায়, মানুষ চায় বলে তারা এমন আয়োজন করেছে।

৪. নূরানীবাদ জেলার বেলাবোতে মসজিদ ভেঙ্গে ফেলার জন্য সাইনবোর্ড খুলে ফেলে এবং ইউএনও ও ওসির অন্যায় হুমকি ধামকির প্রতিবাদে আমাদের পক্ষ থেকে সরকারী আইনজীবির মাধ্যমে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়। আইনী নোটিশ পেয়ে সেখানকার ইউ.এন.ও এবং ওসি চুপসে যায়। স্থানীয় এমপি তাদের প্রশাসনিক কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে মসজিদ থাকবে মর্মে ঘোষণা দেয়।

৫. পবিত্র কুরবানীর হাট বিষয়ক প্রেসক্লাবে কনফারেন্স করে ষড়যন্ত্রমূলক বক্তব্য দেয়ায় পবাকে আইনি নোটিশ পাঠানো হয়েছে। পবা নোটিশের জবাব পাঠায়, তারা এ বিষয়ে সচেতন ও সর্তক হয়।

৬. পবিত্র কুরবাণীর পশুর চামড়া মাদ্রাসার ইয়াতিমগণের হক্ব হওয়া সত্যেও এ নিয়ে এলাকার সন্ত্রাসীদের সন্ত্রাসীপনা প্রবল আকার ধারণ করলে তা রুখতে আইজিপি, ডিএমপি কমিশনার ও ঢাকা শহরের সকল থানায় বিশেষ আইনী নোটিশ পাঠানো হয়। আইনী নোটিশ পাঠানোর ফলে অন্যান্য বছরের তুলনায় এ বছর সন্ত্রাসীদের আস্ফালন উল্লেখযোগ্য ভাবে লক্ষ্যণীয় হয়নি। সন্ত্রাসীরা অত্যন্ত ভীত হয়। প্রশাসনও সক্রিয় হয়।

৭. বাংলা নববর্ষ পালন নিয়ে পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার সম্পর্কে দলিলবিহীন, মনগড়া, ভিত্তিহীন বক্তব্য প্রদান করে জনমনে বিভ্রান্তি সৃষ্টির করার জন্য তাকওয়া মসজিদের খতিব উসামা ইসলামকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে। নোটিশ পেয়ে উক্ত তাকওয়া মসজিদের পরিচালনা পর্ষদ তাকে তার খতিব পদ থেকে বহিষ্কার করেছে।

৮. মহাসম্মানিত এবং মহাপবিত্র ১২ই শরীফ উৎযাপনে প্রশাসন থেকে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া এবং একইসাথে পবিত্র রবিউল আউওয়াল শরীফ মাসে যেন কোন প্রকার দ্বীন ইসলাম উনার শরীয়ত বিরোধী হারাম নাজায়িয কর্মকা- না করা হয় পাশাপাশি সকল প্রকার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মাসব্যাপী যেন বিশেষভাবে ঈদে মীলাদে হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম অর্থাৎ পবিত্র সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ উৎযাপন করা হয় তা নিশ্চিত করতে এসব বিষয়ে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, সংষ্কৃত মন্ত্রী, ধর্ম মন্ত্রী, পরিকল্পনা মন্ত্রী ও এসব মন্ত্রণালয়ের সচিবদেরকে রিপ্রেজেন্টেটিভ লেটার পাঠানো হয়।  সরকার একটি গেজেট প্রকাশ করে যে, সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বাধ্যতামূলকভাবে ঈদে মীলাদে হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম অর্থাৎ পবিত্র সাইয়্যিদুল আ’ইয়াদ শরীফ পালন করতে হবে। সুবহানাল্লাহ!

৯. মহাসম্মানিত এবং মহাপবিত্র ১২ই শরীফ অর্থাৎ সাইয়্যিদুল আইয়াদ শরীফ পালন করা বিদআত বলে যেসব ওলামায়ে ‘সূ’ প্রচার করে তাদেরকে (৫জন) লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে। নোটিশ প্রদাতার পক্ষে আইনজীবির মোবাইলে তারা ফোন করে ভুল হয়েছে মর্মে ক্ষমা চেয়েছে।

১০. ‘বাল্য বিবাহ রোধে চাই সামাজিক প্রতিরোধ’ শিরোনামে দৈনিক ইত্তেফাক পত্রিকায় এক মতামতে লেখা হয়, “যে পরিবার তাদের সন্তানকে বাল্য বিবাহ করাবে সেই পরিবারকে সামাজিকভাবে একঘরে করে রাখতে হবে। তাতে তারা অনুতপ্ত হবে এবং অন্যরা শিক্ষা নেবে।” খাস সুন্নত বাল্যবিবাহের বিরুদ্ধে লেখা ছাপানোর অভিযোগে ইত্তেফাক পত্রিকার প্রকাশক, সম্পাদক ও লেখককে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।  লেখক ক্ষমা চেয়ে জবাব পাঠিয়েছে এবং বলেছে, ভবিষ্যৎ-এ সে কখনো এমন লিখনী আর লিখবে না। সর্তক থাকবে।

১১. ওয়াজ মাহফিলের ওপর আরোপিত নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করার জন্য নির্বাচন কমিশনকে নোটিশ ডিমান্ডিং জাষ্টিস পাঠানো হয়েছে।  নির্বাচন কমিশন ওয়াজ মাহফিলের ওপর তাদের নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে নেয়।

১২. মডেল ইউনাইটেড ন্যাশনসের ‘সিক্রেট পার্টি’তে অশ্লীলতা নিয়ে ট্রাষ্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান ও আই ফোরামের প্রতিষ্ঠাতাকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে প্রতিষ্ঠানটি তাদের অফিসিয়াল ভেরিফাইড ফেসবুক পেজে ক্ষমা চেয়েছে।

১৩. বিপিএল ও আইপিএল ক্রিকেট খেলাকে কেন্দ্র করে সারাদেশে জুয়া খেলা বন্ধ করতে এবং একই সাথে বিদেশে টাকা পাচার রোধে জাস্টিস ডিমান্ডিং নোটিশ পাঠানো হয়েছে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সচিব, স্থানীয় সরকার ও পল্লী উন্নয় সমবায় মন্ত্রণালয়ের সচিব, সকল বিভাগের মেট্টো পলিটন পুলিশ কমিশনার ও পুলিশের আইজিপিসহ ৬৪ জেলার জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারকে নোটিশ পাঠানো হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে পরবর্তীতে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার মুহম্মদ সামীউল হক ও রোকন উদ্দিন মুহম্মদ ফারুক রিট করলে হাইকোর্ট ঢাকা ক্লাবসহ দেশের ১৩টি ক্লাবের সকল প্রকার জুয়া খেলা নিষিদ্ধ ঘোষণা করে রায় দিয়েছে।

১৪. পবিত্র ইশার নামাজের আযান বন্ধ করে অশ্লিল নৃত্য অনুষ্ঠান চালানোর অভিযোগে বরিশালের বানারীপাড়ার পৌর মেয়রকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে। পৌর মেয়র দুঃখ প্রকাশ করে আইনজীবির মাধ্যমে লিগ্যাল নোটিশের জবাব প্রদান করেছে।

১৫. কুড়িগ্রাম ফুলবাড়ি বালাতারী শাহী জামে মসজিদের খতীব আমিনুল ইসলাম জুমুয়ার আলোচনায় অসংখ্য বিভ্রান্তিকর কুফরী আকিদা প্রচার করায় তার ইমাম ও খতীব পদ থেকে অব্যাহতি চেয়ে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে। আমাদের নোটিশ যাওয়ার সাথে সাথে থানার ওসি, চেয়ারম্যান ও মসজিদ কমিটির সভায় খতীব আমিনুল ইসলামকে স্থায়ী বরখাস্ত করা হয়েছে।

১৬. গত ৮ অক্টোবর ২০১৯ থেকে ১৩ অক্টোবর ২০১৯ তারিখ পর্যন্ত ৬ পর্বের ধারাবাহিক ‘মামলাবাজ সিন্ডিকেট’ শীর্ষক কথিত অনুসন্ধানী রিপোর্টে সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে মুক্তিযুদ্ধের স্বপক্ষ শক্তি, হক্ব দরবার শরীফ পবিত্র রাজারবাগ দরবার শরীফের মহাসম্মানিত হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা আলাইহিস সালাম উনার মুবারক শানে মিথ্যা, বানোয়াট রিপোর্টের প্রেক্ষিতে এনটিভি কর্তৃপক্ষকে নিঃশর্ত ক্ষমা চাওয়ার আহবান জানিয়ে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে। প্রতিবাদ প্রচারিত হয়।

১৭. দৈনিক ইত্তেফাক পত্রিকায় গত ২ নভেম্বর, ২০১৯ তারিখে ১ম পৃষ্ঠায় “ কালো তালিকাভুক্ত আট জঙ্গি সংগঠন নিষিদ্ধ হয়নি” শীর্ষক প্রতিবেদনে উলামা আনজুমানে আল বাইয়্যিনাত-এর নামে মহাপবিত্র রাজারবাগ দরবার শরীফ এবং মহাসম্মানিত সাইয়্যিদুনা হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা আলাইহিস সালাম উনাকে জড়ানোর তীব্র প্রতিবাদ এবং প্রাসঙ্গিক তথ্য অবহিতকরণ প্রসঙ্গে প্রতিবাদলিপি পাঠানো। প্রতিবাদলিপি ছাপানো হয়।

১৮. দৈনিক দেশ রূপান্তর পত্রিকায় গত ২ নভেম্বর ২০১৯ ইং “নিরীহ মানুষকে আসামি করে সম্পদ দখলই উদ্দেশ্য সিন্ডিকেট” ০৩ নভেম্বর ২০১৯ ইং “চার দলে সক্রিয় ৪০ মামলাবাজ” এবং ০৪ নভেম্বর ২০১৯ তারিখ “সিন্ডিকেটের কব্জায় কত জমি!” শীর্ষক কথিত রিপোর্টে সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে মুক্তিযুদ্ধের স্বপক্ষ শক্তি, হক্ব দরবার শরীফ পবিত্র রাজারবাগ দরবার শরীফের মহাসম্মানিত হযরত মুর্শিদ ক্বিবলা আলাইহিস সালাম উনার মুবারক শানে মিথ্যা, বানোয়াট রিপোর্টের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ প্রকাশ প্রসঙ্গে প্রতিবাদলিপি পাঠানো হয়। প্রতিবাদলিপি ছাপানো হয়।

১৯. ডাচ বাংলা ব্যাংকের ২০২০ সালের ক্যালেন্ডারে পবিত্র কাবা শরীফ উনার ছবি অবমাননাকরভাবে উপস্থাপনের মাধ্যমে মুসলমানগণের দ্বীনি অনুভূতিতে আঘাতের দায়ে ডাচ বাংলা ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবুল কাশেম মোহাম্মদ শিরিনকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে। তারা উক্ত ক্যালেন্ডার ছাপানোর জন্য দুঃখ প্রকাশসহ ক্ষমা প্রাথর্না করেছে। এক বিশেষ বিজ্ঞপ্তি দিয়ে পূর্বের ক্যালেন্ডার সংশোধনী দিয়ে প্রত্যাহার করেছেন এবং উক্ত ক্রটিযুক্ত ছবির ডিজাইনারকে কালো তালিকাভূক্ত করেছেন।

২০. করোনাভাইরাস আতঙ্কে পবিত্র কাবা শরীফ ও মদিনা শরীফে জুমার নামাজ বন্ধে করে দেয়া হয়েছে এমন মিথ্যা সংবাদ প্রচার করায় ২১ মার্চ ২০২০ তারিখে ডেইলি স্টারকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে। তারা ভুল স্বীকার ও দুঃখ প্রকাশ করেছে।

২১. ‘ইসলামে নারীর নেতৃত্ব হারাম মোটেও ঠিক নয়’ এমন বক্তব্যের কারণে সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূরকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

২২. “যারা লালন সঙ্গীত শোনে তারা সন্ত্রাসী হতে পারে না” এমন বক্তব্যের কারণে কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের প্রধান মনিরুল ইসলামকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

২৩. আঞ্জুমানে আল বাইয়্যিনাতকে নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্য করায় মির্জাপুর ক্যাডেট কলেজের ছাত্র ক্যাডেট সাবিকে ও উক্ত প্রতিষ্ঠানের কর্তৃপক্ষকে অবহিত করে লিগ্যাল নোটিশ প্রদান করা হয়েছে।

২৪. মাদরাসায় অমঙ্গল যাত্রা করার অভিযোগে ২৮টি মাদরাসার কর্তৃপক্ষ প্রশাসনকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

২৫. দূর্গাপুজার বিরুদ্ধে কথা বলা যাবে না, বললে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে! এমন বক্তব্যের কারণে ডি.এম.পি. পুলিশ কমিশনারকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

২৬. কথিত দেবী চলচ্চিত্রে মুসলমানগণকে ধর্ষক হিসেবে উপস্থাপন, ধুমপান করাকে উৎসাহিত ও কথিত দেবীর আধ্যাতিক শক্তি রয়েছে এমন বিষয়গুলোর জন্য উক্ত চলচ্চিত্র থেকে তা বাদ দিয়ে ক্ষমা চাওয়ার জন্য আইনী নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

২৭. ২৫ মার্চ শহীদদের স্মরণে বগুড়াবাসীর লক্ষাধিক মোমবাতি প্রজ্বালন অনুষ্ঠানের আয়োজক বগুড়া জেলার পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞয়াকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

২৮. পবিত্র হাদিস শরীফ উনাকে অবমাননা করে গল্প ছাপানোর অভিযোগে প্রথম আলোর সম্পাদকসহ তিনজনকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

২৯. “হিজাবের নামে নারীরা নিজেরাই নিজেদের বন্দি করে ফেলছে, বোরকা পড়ে অনেক নারী অপরাধ করছে।”- রেল মন্ত্রী এমন মন্তব্য করায় তাকে ক্ষমা চাওয়ার আহ্বান রেখে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৩০. নোয়াখালীর আবদুল্লাহ মিয়ার হাট হামিদিয়া দাখিল মাদ্রসায় অশ্লিল নৃত্য অনুষ্ঠান ভিডিও করে তা অনলাইনে প্রচার করার অভিযোগে প্রতিষ্ঠানটির পরিচালনা কমিটির সভাপতি ও প্রধান শিক্ষককে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৩১. সারাদেশে পহেলা বৈশাখ উদযাপন ও মঙ্গল যাত্রার আয়োজন বন্ধ চেয়ে সংস্কৃতি সচিব, শিক্ষা সচিব, স্বরাষ্ট্র সচিব ও পুলিশের মহাপরিদর্শক [আইজিপি]-কে জাস্টিজ ডিমান্ডিং নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৩২. সম্মানিত শরীয়ত বিরোধী মন্তব্য করায় জাফর ইকবালকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৩৩. সম্মানিত দাড়ি নিয়ে অবমাননাকর প্রতিবেদন প্রকাশ করায় বিবিসি বাংলাকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৩৪. নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার এবং সম্মানিত আহলে সুন্নত ওয়াল জামায়াত উনার আকিদা বিরোধী উদ্দেশ্য মূলক ধারাবাহিক প্রতিবেদন ছাপানোর অভিযোগে নয়া দিগন্ত পত্রিকার প্রকাশক, সম্পাদক ও প্রতিবেদককে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৩৫. দাড়ি রাখলে ও টাকনুর উপরে কাপড় পরলে বুঝতে হবে সে সন্ত্রাসী এমন উদ্ধত্যপূর্ণ মন্তব্য করায় পিযুষ বন্দোপাধ্যায়কে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৩৬. নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার ব্যবহৃত সুন্নতি নালাইন শরীফ (স্যান্ডেল) মুবারককে ফেলে দিয়ে তাদের কথিত অধুনা ডিজাইন অর্থাৎ নকশা গ্রহণ করার আহ্বান রেখে ধৃষ্টতা প্রদর্শন পূর্বক বিজ্ঞাপন তৈরী ও প্রচার করে বাটা কোম্পানী। এজন্য তাদেরকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৩৭. “হুযুর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার শরীরের গঠন ছিল সিক্স প্যাক” নাউযুবিল্লাহ! ইউটিউবে প্রচারিত অন্য আরেকটি বক্তব্য প্রচার করে মিজানুর রহমান আজহারী বলে যে, “হুযুর পাক ছল্লাল্লাহ আলাইহি ওয়া সাল্লাম তিনি ছিলেন উম্মি অর্থ্যাৎ নিরক্ষর” নাউযুবিল্লাহ! এজন্য তাকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৩৮. পবিত্র রমাদ্বান শরীফে আইসিসি এর তত্তাবধানে ত্রিদেশিও ক্রিকেট খেলার আয়োজন করার প্রতিবাদে এবং খেলার উক্ত তারিখ বাতিল করতে আফগানিস্তান, পাকিস্তানের রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীদেরকে স্বারকলিপি পাঠানো হয়েছে। এছাড়াও বাংলাদেশের যুব ও ক্রিয়া মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী, ক্রিকেট বোর্ডের চেয়ারম্যান ও আইসিসির চেয়ারম্যনকে স্বারকলিপি পাঠানো হয়েছে।

৩৯. রংপুর কমিউনিটি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে বোরখা-হিজাব পরা নিষিদ্ধ করায় রংপুর কমিউনিটি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের চেয়ারম্যানকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৪০. “জয় হিন্দ” শ্লোগান দিয়ে বক্তৃতা সমাপ্ত করায় রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক এম আবদুস সোবহানকে নিঃশর্ত ক্ষমা চাওয়ার আহবান জানিয়ে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৪১. মসজিদ নিয়ে অবমাননাকর মন্তব্যের দায়ে একাত্তর টিভির উপস্থাপিকা মিথিলা ফারজানাকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৪২. ঢাকার নদীতীরের মসজিদ নিয়ে অবমাননাকর মন্তব্য করায় নৌপরিবহন সচিবকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৪৩. ঢাকার নদীতীরের মসজিদ ভাঙ্গা জায়িজ ফতোয়া দিয়ে অবমাননাকর মন্তব্য করায় তেজগাঁওয়ের মদিনাতুল উলুম মডেল ইনস্টিটিউট বালক কামিল মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল আবদুর রাজ্জাককে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৪৪. মসজিদ নিয়ে অবমাননাকর প্রতিবেদন প্রচার করায় সময় টিভিকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৪৫. রাজধানীর মতিঝিল আইডিয়াল ও বনশ্রী আইডিয়াল স্কুলে মেয়েদের ওড়না পড়া নিষিদ্ধের বিরুদ্ধে চেয়ারম্যানকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৪৬. মেয়ের বিয়ের অনুষ্ঠানে নাচ-গান বিষয়ে পবিত্র দ্বীন ইসলাম উনার অবস্থানকে অবমাননাকরভাবে উপস্থাপনের মাধ্যমে মুসলমানগণের দ্বীনি অনুভূতিতে আঘাতের দায়ে চট্টগ্রাম-১৫ (সাতকানিয়া-লোহাগাড়া) আসনের এমপি আবু রেজা মুহাম্মদ নেজামউদ্দিন নদভীকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৪৭. সর্বশক্তিমান মহান আল্লাহ পাক উনার ক্ষমতাকে নিয়ে অবমাননাকর মন্তব্যের মাধ্যমে মুসলিমদের দ্বীনি অনুভূতিতে আঘাতের দায়ে পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুককে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৪৮. নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম, হযরত উম্মুল মুমিনীন সাইয়্যিদুনা আছ ছানী আশার আলাইহাস সালাম ও সম্মানিত দ্বীন ইসলামকে নিয়ে অবমাননাকর মন্তব্যের মাধ্যমে মুসলিমদের দ্বীনি অনুভূতিতে আঘাতের দায়ে চট্টগ্রাম থেকে প্রকাশিত পূর্বদেশ পত্রিকার প্রকাশক শফিকুর রহমান, সম্পাদক মুজিবুর রহমান ও লেখক লাভলী তালুকদারকে ৬টি লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৪৯. গাজীপুরের একটি পোশাক কারখানায় মুসলিম কর্মকর্তা-কর্মচারী ও শ্রমিকদের জন্য তিন ওয়াক্ত নামাজ মসজিদে পড়া বাধ্যতামূলক করা হয়েছিল। বিষয়টি নিয়ে বিবিসি বাংলার প্রতিবেদক শাহনাজ পারভীনের একটি প্রতিবেদন প্রচার করে বিবিসি বাংলা। ওই প্রতিবেদনে নামাজ বাধ্যতামূলক করার বিষয়টিকে নেতিবাচকভাবে উপস্থাপন করার দায়ে বিবিসি বাংলাকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়।

৫০. গাজীপুরের একটি পোশাক কারখানায় মুসলিম কর্মকর্তা-কর্মচারী ও শ্রমিকদের জন্য তিন ওয়াক্ত নামাজ মসজিদে পড়া বাধ্যতামূলক করা হয়েছিল। বিষয়টি নিয়ে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছিল, “বাংলাদেশের আইনে এরকম কোন বাধ্যবাধকতা দেয়া যায় না। বাংলাদেশের আইন কেন, সংবিধানেই তো বলা আছে ধর্ম কারো উপর চাপিয়ে দেয়া যাবে না। ইসলাম ধর্মও বলে না কারো উপরে ধর্ম চাপিয়ে দেয়া যাবে।” বাংলাদেশের আইন ও সংবিধানসম্মত একটি ইসলামী ইবাদতকে আইন ও সংবিধান বিরোধী হিসেবে উপস্থাপন করায় আইনমন্ত্রীকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠান হয়।

৫১. গত ১০ মার্চ ২০২০ তারিখে সুনামগঞ্জের দিরাইয়ে পবিত্র মসজিদ ও মাদরাসা নির্মাণে বাধা প্রদান করায় স্থানীয় ৫জনকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠান হয়।

৫২. গত ১০ মার্চ ২০২০ তারিখে সুনামগঞ্জের দিরাইয়ে পবিত্র মসজিদ ও মাদরাসা নির্মাণের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র, অপপ্রচার ও উসকানিমূলক বক্তব্য প্রদান করায় স্থানীয় মালানা জাকির হুসেনকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠান হয়।

৫৩. পৃথিবীর সংক্ষিপ্ত ইতিহাস নামক বইয়ে নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনাকে ও পবিত্র দ্বীন ইসলাম নিয়ে অবমাননাকর লেখনি প্রকাশের দায়ে ১৬ মার্চ ২০২০ তারিখে দিব্য প্রকাশ প্রকাশনীকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৫৪. অ্যা লিটল হিস্ট্রি অফ দ্য ওয়ার্ল্ড নামক বইতে নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনাকে ও পবিত্র দ্বীন ইসলাম নিয়ে অবমাননাকর লেখনি প্রকাশের দায়ে ১৬ মার্চ ২০২০ তারিখে চারদিক প্রকাশনীকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৫৫. করোনাভাইরাস আতঙ্কে পবিত্র কাবা শরীফ ও মদিনা শরীফে জুমার নামাজ বন্ধে করে দেয়া হয়েছে এমন মিথ্যা সংবাদ প্রচার করায় ২১ মার্চ ২০২০ তারিখে এনটিভিকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৫৬. গত ১৫ মার্চ ঢাকায় একটি সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছিলেন, করোনা প্রতিরোধে মসজিদে মানুষ সীমিত আসাই ভালো এই মন্তব্যের মাধ্যমে মুসলিমদের দ্বীনি অনুভূতিতে আঘাতের দায়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেককে ২১ মার্চ ২০২০ তারিখে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৫৭. গত ১৭ মার্চ’২০২০ তারিখ বেসরকারী টেলিভিশন চ্যানেল একাত্তরটিভির টক শোতে মসজিদে নামাজ বন্ধ করা নিয়ে অবমাননাকর মন্তব্যের মাধ্যমে দ্বীনি অনুভূতিতে আঘাতের দায়ে একাত্তর টিভির টক শো “একাত্তর জার্নাল”-এর উপস্থাপিকা মিথিলা ফারজানাকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৫৮. গত ১৯ মার্চ- ২০২০ একাত্তর টিভির টক শো “একাত্তর জার্নাল”-এর একটি পর্বে ফারজানা রূপা করোনা ভাইরাসে মৃতদের লাশ দাফন না করে পুড়িয়ে ফেলাকে “মানবতা” ও “বিজ্ঞানসম্মত” বলে বক্তব্য প্রদান করেছে। তাই উপস্থাপিকা ফারজানা রূপাকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৫৯. ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের ৫৭ নং ওয়ার্ডের আওতাধীন কামরাঙ্গীর চরের হোটেল-রেস্টুরেন্টসহ সব ধরণের খাবারের দোকান বন্ধ করে দেয়ায় ওই ওয়ার্ডের কমিশনার সাইদুল ইসলাম মাদবরকে ২৩ মার্চ’২০২০ লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৬০. গত ২৩ মার্চ ডিবিসি নিউজ চ্যানেলের টক শো “রাজকাহন”-এর একটি পর্বে মনিরুজ্জামান রাব্বানী মসজিদে নামায আদায়, নূরে মুজাসসাম হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার টুপি পরিধান ও ইসলামে গণজমায়েতের বিধান নিয়ে মনগড়া ও আপত্তিকর মন্তব্য প্রদান করার দায়ে তাকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৬১. আর্ন্তজাতিক পবিত্র সুন্নত মুবারক প্রচার কেন্দ্রের আমিলদেরকে নির্যাতনের ঘটনায় ঝালকাঠি জেলার রাজাপুর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা সোহাগ হাওলাদারকে ২৭ মার্চ’২০২০ লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৬২. গত ২ এপ্রিল’২০২০ প্রচারিত ডিবিসি নিউজ চ্যানেলের টক শো “রাজকাহন”-এর শিরোনাম ছিল “মক্কা মদিনায় জামাত নেই, বাংলাদেশে কেন?” সেই টক শো-তে উপস্থাপিকা শারমিন চৌধুরী বারবারই দাবি করেছে যে, পবিত্র মক্কার মসজিদুল হারাম ও মদিনার মসজিদে নববীতে জামাতে নামাজ আদায় বন্ধ হয়ে গেছে, সুতরাং বাংলাদেশেও মসজিদসমূহে জামাত বন্ধ করতে হবে। দ্বীনি অনুভূতিতে আঘাতের দায়ে ডিবিসি নিউজ টেলিভিশনের উপস্থাপিকা শারমিন চৌধুরীকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৬৩. বাংলাদেশের মসজিদসমূহে জামাত বন্ধের আহবান জানানোর মাধ্যমে দ্বীনি অনুভূতিতে আঘাতের দায়ে ঢাকার কাওরানবাজারের আম্বরশাহ শাহী জামে মসজিদের খতিব মাজহারুল ইসলামকে গত ৫ এপ্রিল’২০২০ লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৬৪. বাংলাদেশের মসজিদসমূহে জামাত বন্ধের আহবান জানানোর মাধ্যমে দ্বীনি অনুভূতিতে আঘাতের দায়ে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের অধ্যাপক আহমদ আবুল কালামকে ৫ এপ্রিল’২০২০ লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৬৫. গত ২ এপ্রিল’২০২০ প্রচারিত ডিবিসি নিউজ চ্যানেলের টক শো “রাজকাহন”-এর শিরোনাম ছিল “মক্কা মদিনায় জামাত নেই, বাংলাদেশে কেন?” সেই টক শো-তে প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত চিকিৎসক অধ্যাপক ডা. এ বি এম আবদুল্লাহ করোনা পরিস্থিতিতে মুসলিমদেরকে ঘরে নামাজ আদায় করতে বলেছে। পবিত্র দ্বীন ইসলামকে অবমাননার দায়ে প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত চিকিৎসক অধ্যাপক ডা. এ বি এম আবদুল্লাহকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৬৬. বাংলাদেশের মসজিদসমূহে জামাত বন্ধের ইচ্ছা জানানোর মাধ্যমে দ্বীনি অনুভূতিতে আঘাতের দায়ে ধর্ম প্রতিমন্ত্রী আবদুল্লাহকে ২ এপ্রিল’২০২০ লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৬৭. জুমুয়াবার (৩ এপ্রিল’২০) গণমাধ্যমে ১৭ জন চিকিৎসকের স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে দেশের সব ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে সম্মিলিত প্রার্থনা বন্ধ রাখার আহ্বান জানানো হয়েছিল। বিবৃতিতে ওই ১৭ চিকিৎসক বলেছিলেন, কিছু আলেম ওলামার অদূরদর্শিতার জন্য বাংলাদেশের মসজিদে মসজিদে জুমার নামাজ ও পাঞ্জেগানা নামাজ জামাতে পড়া হচ্ছে। বাংলাদেশের মসজিদসমূহে জামাত বন্ধের দাবি জানানোর মাধ্যমে দ্বীনি অনুভূতিতে আঘাতের দায়ে ১৭ জন চিকিৎসককে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৬৮. গত ৫ এপ্রিল ২০২০ তারিখে দৈনিক সমকালের প্রথম পাতায় লিড নিউজ হিসেবে প্রকাশিত “মৃত্যুর হারে বাংলাদেশ ইতালির কাছাকাছি” শীর্ষক ভুল, অতিরঞ্জিত ও বিভ্রান্তিকর সংবাদের প্রতিবাদে সম্পাদক, বার্তা সম্পাদক ও প্রতিবেদককে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৬৯. গত ৬ এপ্রিল ২০২০ তারিখে ধর্ম মন্ত্রণালয়ের এক জরুরি বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে মসজিদের ক্ষেত্রে খতিব, ইমাম, মুয়াজ্জিন ও খাদেমরা ছাড়া অন্য সব মুসল্লিরা নিজ নিজ বাসায় নামাজ আদায় করবেন। জুমার জামাতে অংশগ্রহণের পরিবর্তে ঘরে জোহরের নামাজ করবেন। মসজিদে জামাত চালু রাখার প্রয়োজনে খতিব, ইমাম, মুয়াজ্জিন ও খাদেমরা মিলে পাঁচ ওয়াক্তের নামাজ অনধিক পাঁচজন এবং জুমার জামাতে অনধিক ১০ জন শরিক হতে পারবেন। বাইরের মুসল্লি মসজিদে জামাতে অংশ নিতে পারবেন না। এই নির্দেশ কেউ অমান্য করলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। বাংলাদেশের মুসলিমদেরকে তাদের সাংবিধানিক অধিকার পালনে বাধা সৃষ্টি করার দায়ে ধর্ম প্রতিমন্ত্রী আব্দুল্লাহকে নোটিশ ডিমান্ডিং জাস্টিস পাঠানো হয়েছে।

৭০. গত ৯ এপ্রিল ২০২০ তারিখে ডিসি কক্সবাজার তার ফেসবুক আইডিতে প্রদত্ত একটি স্ট্যাটাসে লিখেছে: “আজ সরকারি আদেশ অমান্য করে গরু জবাই করার অপরাধে দশ হাজার টাকা অর্থদণ্ড দেয়া হয়। সরকারি নির্দেশনা মেনে চলুন। অন্যথায় কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।” তার অত্যন্ত আপত্তিজনক ও বিভ্রান্তিকর স্ট্যাটাসটির দায়ে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

৭১. গত ১৬ এপ্রিল ২০২০ তারিখে দৈনিক কালের কণ্ঠ পত্রিকায় প্রকাশিত একটি সংবাদ বলা হয়েছে, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও)-কে “স্যার” না বলায় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থীকে হেনস্তা করেছেন নেত্রকোনা জেলা কলমাকান্দা থানার অফিস ইনচার্জ মাজহারুল ইসলাম। তিনি এসময় ওই শিক্ষার্থীকে ‘ইসলামিক স্টাডিজ ডিপার্টমেন্ট হলো মাইগ্যা ডিপার্টমেন্ট, এখানে তো মাইগ্যারা পড়ে’ বলে মন্তব্য করে। অত্যন্ত আপত্তিজনক তার এ মন্তব্যের দায়ে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

(পরবর্তী সংখ্যার অপেক্ষায় থাকুন)

 

অপরাধের মাত্রা বাড়ার সাথে সাথে পাল্টাচ্ছে কিশোর অপরাধের ধরণ। মূল্যবোধের অবক্ষয় ও আকাশ সংস্কৃতিই মুখ্য কারণ।সরকারের উচিত- দেশের এই ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে বাঁচাতে যুগপৎ উদ্যোগ গ্রহণ করা।

এনজিওগুলোর ক্ষুদ্রঋণের ফাঁদে প্রান্তিক ও গ্রামীণ এলাকার কোটি কোটি মানুষ সর্বস্বান্ত। ঋণের কিস্তির চাপে একের পর এক ঘটছে আত্মহত্যার ঘটনা। ‘ক্ষুদ্রঋণ দারিদ্র বিমোচন নয়, বরং দারিদ্রতা লালন করছে।’ এনজিগুলোর বিরুদ্ধে শক্ত পদক্ষেপ চায় দেশের ৩০ কোটি মানুষ।

অনিয়ম, দুর্নীতি ও অব্যবস্থাপনায় খেলাপি ঋণ এখন ৩ লাখ কোটি টাকা। ইচ্ছাকৃত খেলাপিদের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ না নিয়ে উল্টো তাদের দেয়া হচ্ছে সুযোগ সুবিধা। ব্যাংকের টাকা জনগণের টাকা। দেশের মালিক জনগণ। সরকার জনগণের টাকা নিয়ে ছিনিমিনি খেলতে পারেনা।

৭ বছরেও হয়নি পিতা-মাতার ভরণ-পোষণ নীতিমালা। প্রতিনিয়ত ঘটছে সন্তান কর্তৃক অসহায় পিতা-মাতাকে নির্যাতনের ঘটনা। দেশে বাড়ছে পশ্চিমা ‘ওল্ডহোম’ সংস্কৃতি।শুধু নীতিমালা বাস্তবায়নেই নয় বরং দ্বীন ইসলাম উনার আদর্শ প্রচার-প্রসারেই রয়েছে এর সুষ্ঠ সমাধান।

বছরের পর বছর ধরে ভারতীয় পঁচা-গলা গোশত ঢুকছে দেশের বাজারে। মহাক্ষতিগ্রস্ত দেশের গোশত ব্যবসায়ীরা; পাশাপাশি চরম হুমকিতে দেশের জনস্বাস্থ্য। সরকারের সংশ্লিষ্ট মহলের নীরব দর্শকের ভূমিকা সমালোচক মহলের কাছে মীর জাফরের অবস্থানের মতই প্রতিভাত হচ্ছে।