আমীরুল মু’মিনীন হযরত সাইয়্যিদ আহমদ শহীদ বেরলভী আলাইহিস সালাম তিনি নিঃসন্দেহে আল্লাহ পাক উনার খাছ ওলী উনার প্রতি অপবাদকারী যালিম গং নিঃসন্দেহে গুমরাহ, বাতিল, লা’নতপ্রাপ্ত, জাহান্নামী ও সুন্নী নামের কলঙ্ক রেজাখানীরা আয়নায় নিজেদের কুৎসিত চেহারা দেখে নিক ॥ ইসলামী শরীয়ার আলোকে একটি দলীলভিত্তিক পর্যালোচনা-১২

সংখ্যা: ২১৮তম সংখ্যা | বিভাগ:

গুমরাহ মৃত আহম্মক রেজা পাঠানীর অনুসারীদের নিকট জিজ্ঞাসা- তারা কোন দলীল প্রমাণের আলোকে আহলে সুন্নত ওয়াল জামায়াতের সুমহান ইমাম, আমীরুল মু’মিনীন, আওলাদে রসূল সাইয়্যিদুনা হযরত শহীদে আ’যম বেরলভী আলাইহিস সালাম উনাকে এ উপমহাদেশের ওহাবী মতবাদের প্রতিষ্ঠাতা বলে উল্লেখ করেছে? হয়তোবা তাদের মাথা নষ্ট হয়েছে, চক্ষু অন্ধ হয়েছে কিংবা দিলের মধ্যে মহর পড়েছে। নতুবা তারা এ কথাগুলোর জবাব দিক।

আমরা সকলেই জানি এবং ইতিহাস সাক্ষী যে, আমীরুল মু’মিনীন হযরত শহীদে আ’যম বেরলভী আলাইহিস সালাম উনার ঊর্ধ্বতন সিলসিলার আকাবির মাশায়িখ আজমাঈন উনারা, তিনি এবং উনার পরবর্তী সিলসিলার সকল মাশায়েখে আজমাঈন সকলেই খালিক্ব মালিক মহান আল্লাহ পাক উনার এবং বান্দার মাঝে উসীলা গ্রহণ করাকে অপরিহার্য বিষয় হিসেবে মানেন জানেন বিপরীতে বাতিল গুমরাহ ইবনে ওহাব নজদীর প্রতিষ্ঠিত ওহাবীদের আক্বীদা হলো- মহান আল্লাহ পাক উনার এবং উনার বান্দাদের মাঝে কোন উসীলা থাকতে পারবে না এবং এ উসীলা থাকা বা গ্রহণ করাকে ওহাবীরা কাট্টা শিরক বলে থাকে। নাউযুবিল্লাহ!

আমীরুল মু’মিনীন হযরত শহীদে আ’যম বেরলভী আলাইহিস সালাম উনার ঊর্ধ্বতন সিলসিলার আকাবির মাশায়িখ আজমাঈন উনারা, তিনি এবং উনার পরবর্তী সিলসিলার সকল মাশায়েখে আজমাঈন সকলেই পবিত্র মদীনাতুল মুনাওওয়ারা শরীফ জিয়ারতের উদ্দেশ্যে সফর করা অত্যন্ত ফযীলতময় নেক আমল এবং নাজাতের কারণ বলে আক্বীদা পোষণ করেন। অথচ গুমরাহ বাতিল ওহাবীরা জিয়ারতের উদ্দেশ্যে সফর করাকে বিদয়াত-নাজায়িয বলে অপপ্রচার করে থাকে। নাউযুবিল্লাহ!

আমীরুল মু’মিনীন হযরত শহীদে আ’যম বেরলভী আলাইহিস সালাম উনার ঊর্ধ্বতন সিলসিলার আকাবির মাশায়িখ আজমাঈন উনারা, তিনি এবং উনার পরবর্তী সিলসিলার সকল মাশায়েখে আজমাঈন সকলেই হযরত নবী-রাসূল আলাইহিমুস সালাম উনাদেরকে রওযা শরীফ-এও সশরীর মুবারকে জীবিত থাকা স্বীকার করেন। অপরদিকে বাতিল বদ ওহাবী গং বিষয়টি বেমালুম অস্বীকার করে থাকে। নাউযুবিল্লাহ! আমীরুল মু’মিনীন হযরত শহীদে আ’যম বেরলভী আলাইহিস সালাম উনার ঊর্ধ্বতন সিলসিলার আকাবির মাশায়িখ আজমাঈন উনারা, তিনি এবং উনার পরবর্তী সিলসিলার সকল মাশায়েখে আজমাঈন সকলেই দোয়া-মুনাজাত শরীফ-এর মধ্যে নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার উসীলা দিয়ে দরূদ শরীফ পড়াকে আবশ্যক মনে করেন। অন্যদিকে বাতিল গুমরাহ ওহাবীরা দোয়া-মুনাজাত শরীফ-এ উসিলা হিসেবে দরূদ শরীফ পড়াকে মোটেও গুরুত্ব আছে বলে মনে করে না।  নাউযুবিল্লাহ!

আমীরুল মু’মিনীন হযরত শহীদে আ’যম বেরলভী আলাইহিস সালাম উনার ঊর্ধ্বতন সিলসিলার আকাবির মাশায়িখ আজমাঈন উনারা, তিনি এবং উনার পরবর্তী সিলসিলার সকল মাশায়েখে আজমাঈন সকলেই মুরাকাবা মুশাহাদা করেছেন এবং সালিকদের জন্য এটা বাধ্যতামূলক করেছেন। অপরদিকে গুমরাহ বাতিল ওহাবীরা মুরাকাবা-মুশাহাদা তথা ইখলাস অর্জনের সাধনাকে বিদয়াত এবং পথভ্রষ্টতা বলে থাকে। নাউযুবিল্লাহ!

আমীরুল মু’মিনীন হযরত শহীদে আ’যম বেরলভী আলাইহিস সালাম উনার ঊর্ধ্বতন সিলসিলার আকাবির মাশায়িখ আজমাঈন উনারা, তিনি এবং উনার পরবর্তী সিলসিলার সকল মাশায়েখে আজমাঈন সকলেই মাযহাব মেনেছেন অনুসরণ-অনুসরণ করেছেন এবং সকল মুরীদণ্ডমুতাকিদ অনুসারীদেরকে মাযহাব অনুসরণ বাধ্যতামূলক বলে ঘোষণা করেছেন। বিপরীতে বাতিল ফিরক্বা ওহাবীরা মাযহাব মানাকে নবুওয়াতের মাঝে অঙ্কীদারিত্ব মনে করে শিরক বলে অপপ্রচার করে। নাউযুবিল্লাহ!

আমীরুল মু’মিনীন হযরত শহীদে আ’যম বেরলভী আলাইহিস সালাম উনার ঊর্ধ্বতন সিলসিলার আকাবির মাশায়িখ আজমাঈন উনারা, তিনি এবং উনার পরবর্তী সিলসিলার সকল মাশায়েখে আজমাঈন সকলেই ইলমে তাসাউফ তথা ইলমুল ক্বলব হাসিল করেছেন এবং এজন্য তাসাউফ তথা তরীক্বতের বিভিন্ন সিলসিলার মাঝে সালিকগণকে দাখিল করেছেন। অন্যদিকে এগুলোকে বিদয়াত নব আবিষ্কৃত বলে ওহাবী বাতিলরা তা অস্বীকার করে। নাউযুবিল্লাহ!

আমীরুল মু’মিনীন হযরত শহীদে আ’যম বেরলভী আলাইহিস সালাম উনার ঊর্ধ্বতন সিলসিলার আকাবির মাশায়িখ আজমাঈন উনারা, তিনি এবং উনার পরবর্তী সিলসিলার সকল মাশায়েখে আজমাঈন সকলেই নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার শাফায়াত বা সুপারিশকে বান্দা তথা উম্মাহর নাজাতের জন্য অপরিহার্য বলে আক্বীদা পোষণ করেন। পক্ষান্তরে বাতিল ওহাবীরা এটাকে একটি সাধারণ অতি তুচ্ছ বিষয় বলে মনে করে।  নাউযুবিল্লাহ!

আমীরুল মু’মিনীন হযরত শহীদে আ’যম বেরলভী আলাইহিস সালাম উনার ঊর্ধ্বতন সিলসিলার আকাবির মাশায়িখ আজমাঈন উনারা, তিনি এবং উনার পরবর্তী সিলসিলার সকল মাশায়েখে আজমাঈন সকলেই নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার সুমহান বিলাদত শরীফ উদযাপন করা এবং এ উপলক্ষে খুশি প্রকাশ করাকে অত্যন্ত বরকত সওয়াবের আমল হিসেবে পালন করে থাকেন। অপরদিকে বাতিল গুমরাহ ওহাবীরা সুমহান রিসালত শানে অনেক আপত্তিকর কুফরী কথা বলে থাকে।  নাউযুবিল্লাহ!

গুমরাহ বাতিল ওহাবীদের এমন বহু বহু আমল-আখলাক আক্বীদা দেখানো যাবে যেগুলোর কোন একটির সাথেও বিন্দুতম জাহিরী-বাতিনী সম্পর্ক আমীরুল মু’মিনীন হযরত শহীদে আ’যম বেরলভী আলাইহিস সালাম উনার ঊর্ধ্বতন সিলসিলার আকাবির মাশায়িখ আজমাঈন উনাদের, উনার এবং উনার পরবর্তী সিলসিলার হিদায়েতপ্রাপ্ত মাশায়েখে আজমাঈন উনাদের কারো মধ্যে কখনও ছিল না এবং আজও নেই।

অতএব, এরপরও উনাকে যে বা যারা ওহাবী বলার অপচেষ্টা করবে তারা ইহ-পরকালে কঠিন খোদায়ী আযাব-গযবে পতিত হয়ে ধ্বংস হবে নিঃসন্দেহে।

আহলান-সাহলান! সুমহান পহেলা শাওওয়াল!! মুবারক হো ঈদে বিলাদতে তাহিরাহ, তাইয়িবাহ, মাহবুবাহ, ফাক্বীহা, মাশুক্বাহ, তাওশিয়াহ, তাকরীমাহ, তাক্বিয়্যাহ, তাযকীয়্যাহ, নূরে হাবীবা, লখতে জিগারে মুজাদ্দিদে আ’যম, কুতুবুল আলম, উম্মু আবিহা, ক্বায়িম-মাক্বামে হযরত যাহরা আলাইহাস সালাম, সাইয়্যিদাতুন নিসা, আওলাদে রসূল, হযরত শাহযাদী উলা ক্বিবলা আলাইহাস সালাম

বিশেষ প্রবন্ধ: সাইয়্যিদুল মুরসালীন, ইমামুল মুরসালীন, নূরে মুজাসসাম, হাবীবুল্লাহ হুযূর পাক ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার সম্মানিত নিসবত মুবারকই মুহব্বত-মা’রিফাত, কুরবত, রেযামন্দি-সন্তুষ্টি মুবারকসহ সমস্ত কিছুর মূল, কাজেই যে যতটুকু উনার সম্মানিত নিসবত মুবারক হাছিল করতে পারবে, সে ততটুকু কামিয়াবী হাছিল করবে

বিশেষ কলাম: পবিত্র লাইলাতুন নিছফি মিন শা’বান মশহূর পবিত্র শবে বরাত এবং উনার আমলসমূহ বিশুদ্ধ বর্ণনা দ্বারা প্রমাণিত হওয়া প্রসঙ্গে-পবিত্র লাইলাতুন নিছফি মিন শা’বান সম্পর্কে বর্ণিত হাদীছ শরীফ একদম ছহীহ- এ বিষয়ে সকল আসমাউর রিজাল বিশারদগণ একমত

বিশেষ কলাম: ছবি, মূর্তি-ভাস্কর্য ও বাদ্যযন্ত্র নিশ্চিহ্ন করা, ভেঙ্গে ফেলা খাছ সুন্নত তো অবশ্যই, বরং ফরযে আইন। কেননা এগুলো তৈরি করা ইবলীস শয়তানের কাজ যারা মহান আল্লাহ পাক উনার সৃষ্টির সদৃশ্য কোনো প্রাণীর মূর্তি-প্রতিমা, ভাস্কর্য ও ছবি তুলবে, আঁকবে বা বানাবে তাদেরকে ক্বিয়ামতের দিন ওইগুলোর মধ্যে প্রাণ দিতে বলা হবে, কিন্তু তারা তাতে প্রাণ দিতে কখনোই পারবে না, বরং মহান আল্লাহ পাক তিনি সেগুলোর মধ্যে প্রাণ দিয়ে প্রস্তুতকারীকে কঠিন শাস্তি দিবেন। নাউযুবিল্লাহ! (১ম পর্ব)

বিশেষ কলাম- পবিত্র মীলাদ শরীফ বা পবিত্র ঈদে মীলাদে হাবীবুল্লাহ ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম উনার পক্ষে রচিত শাইখুল ইসলাম, মুফতীয়ে আ’যমে মক্কা মুকাররামাহ, ইমাম ইবনে হাজার হাইতামী মক্কী শাফিয়ী ক্বাদিরী রহমতুল্লাহি আলাইহি উনার লিখিত বিশ্ববিখ্যাত, বিশ্ব সমাদৃত, সর্বজন স্বীকৃত ও গ্রহণযোগ্য কিতাব- النعمة الكبرى على العالـم فى مولد سيد ولد ادم صلى الله عليه وسلم আন নি’মাতুল কুবরা আলাল আলাম ফী মাওলিদি সাইয়্যিদি ওয়ালাদি আদম ছল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম সম্পর্কে প্রদত্ত পবিত্র মীলাদ শরীফ বিরোধী বাতিল ফিরক্বা ওহাবীদের মুখপাত্র আল কাউসারের মিথ্যা, জালিয়াতি ও জিহালতপুর্ণ বক্তব্যের খণ্ডমূলক জাওয়াব ও প্রকাশ্য বাহাছের চ্যালেঞ্জ